বৃহস্পতিবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২২, ০৬:০২ পূর্বাহ্ন
ঘোষণা:
সত্য প্রকাশে অপ্রতিরোধ্য দৈনিক সময়ের কণ্ঠ ডটকমে আপনাকে স্বাগতম  

টফি অ্যাপে সাড়া ফেলেছে সিয়ামের ‘মৃধা বনাম মৃধা’

বিনোদন প্রতিবেদক
আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ৩০ জুন, ২০২২, ৬:১৩ পূর্বাহ্ন

গেল ঈদ-উল-ফিতর উপলক্ষ্যে ডিজিটাল এন্টারটেইনমেন্ট প্ল্যাটফর্ম টফি ওটিটি প্রিমিয়ার করেছিল তাদের প্রথম অরিজিনাল সিনেমা তীর নিবেদিত “মৃধা বনাম মৃধা।” সিয়াম আহমেদ, তারিক আনাম খান আর নোভা ফিরোজ ত্রয়ীর অভিনয়ে পারিবারিক গল্পভিত্তিক ছবিটি প্রশংসা কুড়াচ্ছে সিনেমাপ্রেমীদের কাছ থেকে।

সিয়াম আহমেদ, নোভা ফিরোজ ও তারিক আনাম খান – ছবির তিন প্রধান শিল্পী মেরিল-প্রথম আলো পুরস্কারের জন্য মনোনয়ন পেয়েছিলেন। দর্শক জরিপের ভিত্তিতে সেরা চলচ্চিত্র অভিনেতা ক্যাটাগরিতে কিছুদিন আগেই মেরিল-প্রথম আলো পুরস্কার পেলেন সিয়াম। আরিফিন শুভ, তারিক আনাম খান, শাকিব খানের মতো তারকাদের মধ্য থেকে এবারের সেরা অভিনেতার তকমা সিয়াম পেয়ে যারপরনাই খুশি। রেটিং ছবির মানদন্ড হিসেবে অবিসংবাদিত কিছু না হলেও আইএমডিবিতে ৯.২ রেটিং নিয়ে ‘মৃধা বনাম মৃধা” জানান দিচ্ছে, দর্শক মানসম্মত সিনেমার পক্ষে।

যেকোন নেটওয়ার্ক থেকে টফি অ্যাপে “মৃধা বনাম মৃধা” ফ্রি দেখার সুযোগ ছিল। দর্শকের সাড়াও মিলেছে অভাবনীয়। টফি অ্যাপে এখন পর্যন্ত ১২ লক্ষ বার দেখা হয়েছে সিনেমাটি। রুপালি পর্দার বাইরেও ছবির জনপ্রিয় হবার সুযোগ আছে, সেটা বোঝা গেছে “মৃধা বনাম মৃধা” এর ওটিটি সাফল্যে।

পারিবারিক গল্পের আবেদন বাংলাদেশি দর্শকদের কাছে সবসময়ই চিরন্তন। অ্যাকশন, রোমান্স কিংবা সুপারহিরো ছবিতে টইটম্বুর সিনেমা হলের করিডোর এবার দর্শক টেনে করোনাকালের দুই বছরের ক্ষতি কিছুটা হলেও লাঘব করেছে। ঈদ মৌসুমে হাতেগোনা কয়েকটি ওটিটি সিনেমার মধ্যে “মৃধা বনাম মৃধা” আলাদাভাবে নজর কেড়েছে ঝলমলে মিউজিক ভিডিও, শিশ মারার সংলাপ কিংবা অ্যাকশন দৃশ্যের জন্য নয়। একটি ঘরোয়া গল্প, যেখানে বাবা-ছেলে সম্পর্কের অম্লমধুর রসায়ন হাসিয়েছে কিংবা চোখ ভিজিয়েছে। ভাবিয়েছেও বটে। দাঁত থাকতে দাঁতের মর্যাদা না বোঝার মতো আপনজনদের কষ্ট দিয়ে পরে  আফসোস করছি না তো আমরা? সিনেমাটা এ কথাই মনে করিয়ে দিতে যেন বানিয়েছেন রনি ভৌমিক।

মৃধা বনাম মৃধা যেন আমাদের জীবনের গল্প। বাবা অবসরপ্রাপ্ত উকিল। পুত্র ও পুত্রবধূ কর্পোরেট চাকরিজীবী। তিনজনের সংসারে একজন কর্মচারীও আছে যে বাসার দেখভাল করে। প্রতিনিয়ত তার নির্বুদ্ধিতা বাবার মেজাজ সপ্তমে চড়াতে ওস্তাদ। আর আছে ছায়া সুনিবিড়, সবুজে ঘেরা এক সুন্দর বাড়ি। চট্টগ্রামের পটভূমি বলেই হয়তো সিনেমাটির লোকেশনের নতুনত্ব রেখাপাত করে।

পারিবারিক জীবনে মনোমালিন্য, বোঝাপড়ার অভাব তো হামেশাই ঘটে। তবে এই সংসারে তা গড়ায় আদালতের চৌকাঠ অবধি। বাকিটা তোলা থাক দর্শকের জন্য টফি অ্যাপে। সব গল্প বলে দিতে নেই।

বাবা-ছেলের চরিত্রে সিয়াম-তারিক আনাম মানিয়ে গেছেন বেশ। তবে দুই তারকার দ্যুতিতে কিন্তু মোটেও অনুজ্জ্বল ছিলেন না সিয়াম এর স্ত্রী’র চরিত্রে অভিনয় করা নোভা ফিরোজ। নিজের সিনেমা অভিষেকে পাকা রাঁধুনির মতো দর্শকের পাতে বেড়ে দিয়েছেন অভিনয়ের স্বাদু রেসিপি। আরেকজনের কথা বলতেই হয়ঃ সানজিদা প্রীতি। তিনিই বোধহয় সিনেমার সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য স্পয়লার বহন করেছেন নিজের ছোট অথচ প্রভাবশালী চরিত্রের কাঁধে।

সবমিলিয়ে মনে হচ্ছে, বাংলাদেশের বিনোদন নদীতে ওটিটি প্ল্যাটফর্মের মানসম্মত কনটেন্টের সম্ভাবনা ও বাজার, দুটোই বেশ নাব্য। “মৃধা বনাম মৃধা” এর একটি উদাহরণ।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো সংবাদ.....
এক ক্লিকে বিভাগের খবর