মঙ্গলবার, ২৭ জুলাই ২০২১, ০১:৫১ পূর্বাহ্ন
ঘোষণা:
সত্য প্রকাশে অপ্রতিরোধ্য দৈনিক সময়ের কণ্ঠ ডটকমে আপনাকে স্বাগতম  

বিসিবি প্রেসিডেন্ট হিসেবে আমার চেয়ে ভালো কেউ হতে পারবে না: সাকিব

দৈনিক সময়ের কন্ঠ ডেস্ক
আপডেট টাইম : রবিবার, ২১ মার্চ, ২০২১, ৬:৪২ পূর্বাহ্ন

দেশসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান জানিয়েছেন, তার চেয়ে ভালো বিসিবি প্রেসিডেন্ট কারও পক্ষে হওয়া সম্ভব না। শনিবার (২০ মার্চ) রাতে যুক্তরাষ্ট্র থেকে এক ফেসবুক লাইভ অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা জানান।

মাশরাফীকে নিয়ে সব সময়ই আলোচনাটা ছিল। খেলা ছাড়ার পর বিসিবিতে কোনো দায়িত্বে আসবেন তিনি। সমর্থকদের আশা ছিল নড়াইল এক্সপ্রেসকে হয়তো কখনও দেখা যাবে বিসিবির প্রেসিডেন্টের চেয়ারে। কিন্তু, মাশরাফী কখনই পালে হাওয়া দেন নি এ আলোচনার।

তবে, এবার নিজের ইচ্ছে জানালেন সাকিব আল হাসান। যুক্তরাষ্ট্র থেকে ভার্চুয়াল আলোচনায় যোগ দিয়ে দর্শকদের করা এক প্রশ্নের উত্তর দিয়েছেন সরাসরি। জানিয়েছেন, মনের কোণে ইচ্ছে আছে বিসিবির ওই ভবনে ঢোকার। তবে, সেটা শুধুই একজন সাধারণ কর্মকর্তা হিসেবে নয়। হতে চান কর্তাদের কর্তা। শুধু তাই নয়, দায়িত্বটি নিতে কতটা ইচ্ছুক তিনি, সেটা জানিয়েছেন অকপটে। বলেছেন, তিনি যদি প্রেসিডেন্ট হতে পারেন, তাহলে সেটা হবে বাংলাদেশের ক্রিকেটের জন্য সেরা ঘটনা।

তিনি জানান, তার মতো ভালো বিসিবি প্রেসিডেন্ট কারও পক্ষেই হওয়া সম্ভব না।

আলোচনার এক পর্যায়ে প্রেসিডেন্ট হলে কিভাবে ক্রিকেটকে বদলে দিতে চান তা নিয়েও কিছু ধারণা দিয়েছেন সাকিব। আইপিএল এবং অন্যান্য উন্নত ক্রিকেট রাষ্ট্রের ঘরোয়া আসরগুলো নিয়ে মুগ্ধতা ছিল সাকিবের কণ্ঠে।

সাকিব বর্তমানে পরিবারের সঙ্গেই অবস্থান করছেন যুক্তরাষ্ট্রের উইসকনসিনের মেডিসন শহরে। সন্তান জন্মের সময় স্ত্রীর পাশে থাকতেই বাংলাদেশ দলের সঙ্গে নিউজিল্যান্ড সফরে যাননি তিনি।

টেস্ট খেলব না এটা কখনই বলিনি, ভুলটা বিসিবির বলে মন্তব্য করে বলেন, ছুটির অ্যাপ্লিকেশনটির কোথাও টেস্ট খেলতে চান না এরকম কোন কথা ছিল না। বরং বিসিবিকে জানিয়েছি, আইপিএলের এ সময়টাতে তিনি অন্য কোনো ম্যাচ খেলতে চান না। এ সময়টাতে আইপিএল খেলতে পারলে, টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের জন্য একটা ভালো প্রস্তুতি হবে বলেই মনে করেন সাকিব।

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে দুটি টেস্টের গুরুত্ব নিয়েও প্রশ্ন তূলেছেন সাকিব। তার মতে, এটা যেহেতু টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের অংশ, তাই এখন আর এই ম্যাচগুলোর কোন গুরুত্ব নাই। তাই অযথা, এই টেস্ট খেলার চেয়ে বিশ্বকাপের জন্য নিজেকে প্রস্তুত করাটাকেই গুরুত্বপূর্ণ বলে ভেবেছেন সাকিব।

সাকিব বর্তমানে পরিবারের সঙ্গেই অবস্থান করছেন যুক্তরাষ্ট্রের উইসকনসিনের মেডিসন শহরে। সন্তান জন্মের সময় স্ত্রীর পাশে থাকতেই বাংলাদেশ দলের সঙ্গে নিউজিল্যান্ড সফরে যাননি তিনি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ.....
এক ক্লিকে বিভাগের খবর